আপনি কি গুগল থেকে ইনকাম করতে চান ? তাহলে দেখুন কিভাবে গুগল থেকে ইনকাম করা যায় সেরা ৩টি উপায় ২০২২

হ্যালো বন্ধুরা আসসালামু আলাইকুম কেমন আছেন সবাই আশা করি সকলেই ভালো রয়েছে ইনশাআল্লাহ আমিও খুব ভালো রয়েছি তাই আজকে আপনাদের সামনে আরো নতুন একটি পোস্ট নিয়ে হাজির হলাম আজকে আমাদের টপিকটি হয়তো আপনি আর্টিকেল এর টাইটেল দেখে এবং থাম্বেল দেখেই বুঝে গিয়েছেন আজকে আমরা আলোচনা করব গুগল এডসেন্স সম্পর্কে এবং গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করার সহজ উপায় গুলো সম্পর্কে আমরা জানব।

অনেকেই হয়তো অনলাইন থেকে ইনকাম করতে চান এবং আপনারা হয়তো খুজতেছেন তে কিভাবে অনলাইন থেকে খুব সহজভাবে ইনকাম করা যায় আপনি চাইলে কিন্তু গুগল থেকে খুব সহজভাবে ইনকাম করতে পারেন অর্থাৎ গুগোল থেকে খুব সহজভাবে ইনকাম করার অনেকগুলি উপায় রয়েছে যার মাধ্যমে আপনি কিন্তু খুব সহজভাবে গুগোল কোম্পানি থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ
কিভাবে ফ্রিতে ওয়েবসাইট তৈরি করবেন ব্লগার ওয়াপকিজ ওয়ার্ডপ্রেস থেকে দেখুন বিস্তারিত

আজকে আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করব কিভাবে আপনি গুগোল এর সমস্ত পাবলিক ইনকাম সোর্স থেকে আপনি ইনকাম করবেন। এবং কিভাবে আপনি খুব সহজভাবে টাকা তুলতে পারবেন গুগল থেকে তো মূলত গুগল হচ্ছে বিশ্বের অন্যতম সেরা একটি কোম্পানি যাদের অনলাইনে অনেকগুলো সার্ভিস রয়েছে এবং সর্বপ্রথম যে সার্ভিসটি হচ্ছে তাদের সার্চ ইঞ্জিন অর্থাৎ google.com এটি কিন্তু হচ্ছে তাদের মেইন সার্চ ইঞ্জিন এবং এখান থেকে কিন্তু তাদের পথ চলা শুরু হয়েছে তার পরবর্তী সময় থেকে কিন্তু এখন পর্যন্ত তাদের পাবলিক ইনকাম এবং তাদের নিজেদের ইনকাম সবগুলো রাস্তা চালু হয়ে গেছে।

আপনি চাইলে কিন্তু খুব সহজ হবে গুগল থেকে আপনিও ইনকাম করতে পারবেন গুগলের কিছু বিভাগ রয়েছে যে বিভাগগুলো থেকে আপনি আপনার প্রয়োজনীয় ওয়েবসাইট, অ্যাপস, ইউটিউব , মাধ্যমে তাদের থেকে ইনকাম করতে পারবেন এবং আজকে আমরা জানবো কিভাবে আপনি গুগোল থেকে খুব সহজভাবে ইনকাম করবেন এবং কি কি পদ্ধতিতে আপনি গুগল থেকে ইনকাম করতে পারবেন সমস্ত বিষয়গুলো নিয়ে আমি আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করব যদি কারো কোন কিছু বুঝতে সমস্যা হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই আমাদের কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত জানাবেন আমি আপনাকে সেটি ভালোভাবে বুঝিয়ে দেয়ার চেষ্টা করব।

গুগল কি

আমরা হয়তো সকলেই গুগোল নামটি শুনেছি এবং অনেকেই হয়তো এটি ব্যবহার করে থাকে বিভিন্ন কাজের জন্য যেমনটা হচ্ছে আমাদের যদি কোন কিছু জানা থাকে তাহলে আমরা সেটি গুগল সার্চ ইঞ্জিনে সার্চ করে থাকি যদি আপনি মনে করেন যে তাদের শুধুমাত্র একটি সার্ভিস অর্থাৎ গুগল সার্চ ইঞ্জিন তাহলে কিন্তু আপনার ভুল হবে কেননা গুগোল এর কিন্তু অনেক ধরনের সার্ভিস রয়েছে।

আপনি গুগল থেকে অনেক ধরনের সার্ভিস নিতে পারবেন এবং আপনার ধারণার বাইরে কিন্তু তাদের সার্ভিস রয়েছে যারা ওয়েবসাইট বা অনলাইন সম্প্রতি কাজ করেন তাদের অবশ্যই গুগলের সাহায্য প্রয়োজন হয়ে থাকে অর্থাৎ আমাদের বিভিন্ন কাজে গুগল খুবই প্রয়োজন হয়ে থাকে আমি একটি ওয়েবসাইট তৈরি করেছি এবং এখানে আমার ওয়েবসাইটটিতে ভিজিটর আনার জন্য গুগলে আমার ওয়েবসাইটটি সাবমিট করতে হবে।

তো এর জন্য রয়েছে গুগোল এর অন্য একটি সার্ভিস যার নাম হচ্ছে গুগল সার্চ কনসোল যেখানে আমাদের ওয়েবসাইটটি সাবমিট করলে গুগলে আমাদের ওয়েবসাইট সাম্প্রতিক সকল ধরনের ফলাফল প্রকাশ করবে এবং আমাদের ওয়েবসাইটে কোন কিছু পাবলিসিটি করার পর সেটি গুগলে খুব সহজভাবে শো করবে যদি আমাদের ওয়েবসাইটটিতে একটি বিষয় নিয়ে লেখা হয় এবং যদি কোন মানুষ গুগলে সেটি সম্পর্কে সার্চ করে তাহলে কিন্তু আমাদের ওয়েবসাইটটি সেখানে খুব দ্রুত চলে আসবে এর জন্য আপনাকে কিন্তু অবশ্যই খুব ভালোভাবে এসইও করতে হবে।

এছাড়াও গুগোল এর কিন্তু আরও বিভিন্ন ধরনের সার্ভিস রয়েছে যে সার্ভিস গুলো আমাদের খুবই প্রয়োজনীয় এবং গুরুত্বপূর্ণ তো যারা অনলাইনে কাজ করতে চাচ্ছেন অর্থাৎ অনলাইনে কাজ করে নিজের ক্যারিয়ার গঠন করতে যাচ্ছেন তাদের জন্য কিন্তু রয়েছে-গুগল অর্থাৎ গুগোল এর সমস্ত ইনকাম সোর্স থেকে কিন্তু আপনি চাইলে ইনকাম করতে পারবেন তাদের ইনকাম সোর্স এর মধ্যে সেরা তিনটি সোর্স নিয়ে আজকে আমরা আপনাদের সাথে কথা বলব যার মাধ্যমে বিশ্বের সকল দেশের মানুষ ইনকাম করতেছে এবং আমাদের বাংলাদেশের কিন্তু অনেক মানুষ রয়েছে যারা গুগল এর সার্ভিস ব্যবহার করে।

তো এখন আর বেশি কথা বলব না আমি নিচে তিনটি সার্ভিস এর নাম বলে দিচ্ছি যেখান থেকে আপনি চাইলে খুব সহজভাবে ইনকাম করতে পারবেন এবং কিভাবে আপনি সার্ভিসগুলো থেকে ইনকাম করবেন সেই বিষয়গুলো নিয়ে আমি আপনাদের সাথে খুব ভালোভাবে আলোচনার চেষ্টা করব যেন আপনি খুব সহজভাবে এই তিনটি বিষয় সম্পর্কে বুঝে যান।

***গুগল এর ইনকাম সোর্স ***

Google Adsense
Google Admob
YouTube Monitize

উপরে যে আমি তিনটি সার্ভিসের নাম বলে দিয়েছি এই সার্ভিসগুলো কিন্তু গুগলের নিজস্ব এবং আমরা এই সার্ভিসগুলো থেকে কিভাবে খুব সহজভাবে ইনকাম করতে পারব সেই বিশেষ সম্পর্কের নিচে আলোচনা করব তো অবশ্যই সবাই পুরো পোস্টটি মনোযোগ সহকারে পড়বেন তাহলে আপনার কোন কিছু বুঝতে সমস্যা হবে না।

Google Adsense থেকে ইনকাম করবো কিভাবে ?

আমরা সর্বপ্রথম আলোচনা করব কিভাবে খুব সহজভাবে গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করা যায়৷

তো মূলত গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করার জন্য আপনার প্রয়োজন হবে ওয়েবসাইট আপনি চাইলে কিন্তু ওয়েবসাইটের মাধ্যমে খুব সহজে গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করতে পারবেন বর্তমান সময়ে আপনি যদি গুগলে কোন কিছু সার্চ করেন এবং কোন ওয়েবসাইট ভিজিট করেন তাহলে সেখানে দেখতে পাবেন বিভিন্ন ধরনের এড দেখাচ্ছে বেশিরভাগ ওয়েবসাইটে কিন্তু এই গুগল এডসেন্স এর এড ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

কেননা বর্তমান সময়ে খুব জনপ্রিয় একটি এড নেটওয়ার্ক হচ্ছে ওয়েবসাইটের জন্য গুগল এডসেন্স বেশিরভাগ মানুষ কিন্তু বর্তমান সময়ে গুগল এডসেন্স ব্যবহার করতেছে তাদের ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম করার জন্য যদি আপনি ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম করার জন্য কোন এড নেটওয়ার্ক খুঁজে থাকেন তাহলে আমি আপনাকে বলব অবশ্যই আপনি চেষ্টা করবেন গুগল এডসেন্স এড নেটওয়ার্ক ব্যবহার করার জন্য কেননা আপনার কনটেন্ট এর সঠিক মূল্য শুধুমাত্র কিন্তু গুগল এডসেন্স এই দিবে।

অন্যান্য হয়তো এড নেটওয়ার্ক থাকতে পারে তবে আপনি যদি খুব ভালো পরিমাণে এবং খুব ভালো কোয়ালিটি কনটেন্ট ওয়েবসাইটে প্রকাশ করতে পারেন তাহলে কিন্তু গুগল এডসেন্স থেকে আপনি খুব ভালো পরিমাণে ইনকাম করতে পারবেন এবং আপনি যদি ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনার ওয়েবসাইটের সমস্ত কনটেন্ট কোয়ালিটি হতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি ওয়েব সাইট থেকে খুব দ্রুত ইনকাম করতে পারবেন।

আপনি চাইলে কিন্তু যে কোন ওয়েব সাইটে গুগল এডসেন্স এড নেটওয়ার্ক ব্যবহার করতে পারবেন যদি আপনার ওয়েবসাইটের কন্টেন্টগুলি ভালো থাকে তাহলে কিন্তু আপনি খুব সহজভাবে গুগল অ্যাডসেন্স অ্যাপ্রুভাল পেয়ে যাবেন আর যদি আপনার ওয়েব সাইটের কনটেন্ট গুলো ভালো না হয় এবং কোয়ালিটিফুল না হয় তাহলে কিন্তু আপনার ওয়েবসাইটটিতে খুব দ্রুত গুগল অ্যাডসেন্স অ্যাপ্রুভাল করাতে পারবেন না।

আপনাকে আগেই কিন্তু গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম এর চিন্তা করা যাবে না কেননা আপনি যদি প্রফেশনাল ভাবে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে চান তাহলে আপনাকে আগে সমস্ত কিছু ভালোভাবে জানতে হবে এবং শিখতে হবে তারপরও আপনাকে গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করার বিষয় বুঝতে হবে যদি আপনি ভাবেন যে আমি একটি ওয়েবসাইট তৈরি করে সেটিতে গুগল এডসেন্স নিব তাহলে কিন্তু খুবই ভুল হবে কেননা গুগল এডসেন্স হচ্ছে বিশ্বের অন্যতম সেরা একটি এন্ড নেটওয়ার্ক যেটি 20 মিলিয়ন এর বেশি ওয়েবসাইট অর্থাৎ বিশ মিলিয়নের বেশি মানুষ তাদের ওয়েবসাইটগুলোতে ব্যবহার করতেছে।

সেই জন্য আপনাকে অবশ্যই খুব সুন্দর ভাবে একটি ওয়েবসাইট তৈরি করতে হবে এবং খুব ভালোভাবে ডিজাইন করতে হবে তারপর যে কাজটি হচ্ছে আপনাকে খুব ভালোভাবে ওয়েবসাইটটিতে কনটেন্ট প্রকাশ করতে হবে অবশ্যই ভালো কোয়ালিটিফুল‌ কনটেন্ট ওয়েবসাইটে প্রকাশ করার চেষ্টা করবেন এবং খুব ভালো ভাবে যদি আপনি ওয়েবসাইটটিতে এসইও করতে পারেন তাহলে গুগল থেকে অনেক পরিমাণে ভিজিটর আনতে পারবেন খুব দ্রুত সহজভাবেই।

এবং গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করার জন্য অবশ্যই কিন্তু আপনার তাদের সার্চ ইঞ্জিন থেকে ভিজিটর লাগবে তাহলে কিন্তু আপনার ওয়েবসাইটটিতে কোন প্রকার সমস্যা হবেনা কারন গুগল চায় তাদের সার্চ ইঞ্জিন থেকেই যেন আপনার ওয়েবসাইটটিতে প্রচুর পরিমাণে ভিজিটর যায় অবশ্যই ওয়েবসাইটটিতে খুব ভালোভাবে এসইও করে নিবেন তাহলে গুগল থেকে আপনার ওয়েবসাইটটিতে ট্রাফিক আনতে পারবেন এর জন্য অবশ্যই আপনাকে কিন্তু খুব ভালো কোয়ালিটি আর্টিকেল ওয়েবসাইটে লিখতে হবে।

তো আপনি একটি ওয়েবসাইট তৈরি করবেন এবং সেখানে কোয়ালিটি কন্টেন্ট ভালো ডিজাইন প্রয়োজনীয় কিছু পেজ রাখবেন আপনার ওয়েব সাইটটিতে একটি ওয়েবসাইটে কিন্তু অবশ্যই কিছু প্রয়োজনীয় রাখা জরুরি এবং আপনি যদি কোন প্রকার পেজ না রেখে গুগল এডসেন্স এর জন্য এপ্লাই করেন তাহলে কিন্তু আপনার ওয়েবসাইটটিতে গুগোল অ্যাডসেন্সে অ্যাপ্রভাল নাও হতে পারে অবশ্যই প্রয়োজনীয় কিছু আপনার ওয়েবসাইটে রাখবেন যেমনটা আমাদের ওয়েবসাইটে দেখতে পারবেন নিচের দিকে যে বাসগুলো আমরা রেখেছি।

***ওয়েবসাইটে প্রয়োজনীয় কিছু পেজ***

About Us
Contact Us
DMCA (ওয়েবসাইটের আর্টিকেল প্রটেকশন এর জন্য)
Privacy policy

আপনার ওয়েবসাইটে খুব ভালো পরিমাণে যদি 15 থেকে 20 টি আর্টিকেল রাখতে পারেন তাহলে খুব ভালো হবে গুগল অ্যাডসেন্স অ্যাপ্রুভাল পেতে তবে কিছু ক্ষেত্রে এর থেকে কম আর্টিকেল কিন্তু গুগল এডসেন্স পাওয়া যায় তবে চেষ্টা করবেন যদি আপনি ইনকাম করার জন্য ওয়েবসাইট তৈরী করেন তাহলে আরো বেশি আর্টিকেল পাবলিসিটি করে গুগল এ্যাডসেন্স এপ্লাই করার। যদি আপনার আর্টিকেলগুলো সঠিক হয়ে থাকে এবং মানসম্মত হয়ে থাকে তাহলে আপনার ওয়েবসাইটটি গুগোল পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে অ্যাপ্রভাল করে নিবে।

তার পরবর্তী সময় থেকে কিন্তু আপনার ওয়েব সাইটটিতে এড বসে ইনকাম শুরু করতে পারবেন গুগোল এর সমস্ত ইনকাম সোর্স পেমেন্ট কিন্তু শুধুমাত্র আপনি ব্যাংক এর মাধ্যমে নিতে পারবেন এবং গুগলের যে তিনটি বিষয় নিয়ে আলোচনা হচ্ছে এ তিনটি ইনকাম সোর্স পেমেন্ট কিন্তু শুধুমাত্র ব্যাংক একাউন্ট যে হতো আমাদের দেশ হচ্ছে বাংলাদেশ তো শুধুমাত্র কিন্তু আপনি ব্যাংক এর মাধ্যমে আপনার পেমেন্ট নিতে পারবেন।

ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম আপনার শুরু হবে যখন আপনার ওয়েবসাইটটিতে এড বসাবেন এবং আপনার ওয়েব সাইটটিতে প্রচুর পরিমাণে ভিজিটর আনতে পারবেন কেননা আপনার ইনকাম নির্ভর করবে আপনার ভিজিটর এর ওপরে আপনার ওয়েব সাইটটিতে খুব ভালো পরিমাণে ভিজিটর আনতে পারেন গুগল থেকে তাহলে কিন্তু ইনকাম খুব ভালো পরিমাণে করতে পারবেন এবং কিভাবে টাকা তুলবেন।

গুগল এডসেন্স থেকে টাকা তোলার জন্য সর্বপ্রথম আপনার ঠিকানাটি যাচাই করে নিতে হবে এর জন্য আপনাকে তারা একটি লেটার পাঠাবে আপনার ঠিকানা এটি আপনাকে পাঠাবে যখন আপনার এডসেন্স একাউন্টে 10 ডলার পূর্ণ হবে তার পরবর্তী কার্যদিবসে আপনাকে তারা একটি লেটার পাঠাবে যার মধ্যে একটি কোড থাকবে সেটি আপনাকে গুগোল অ্যাডসেন্সে বসাতে হবে অনেকের ক্ষেত্রে দেখা যায় যে তিনবার পিন রিসেট করার পরও সে লেটার পাচ্ছেনা সে ক্ষেত্রে চাইলে কিন্তু আপনার এনআইডি কার্ড দিয়ে অর্থাৎ স্মার্ট কাঠি দিয়ে ভেরিফাই করে নিতে পারেন আপনার ঠিকানা এবং আপনার একাউন্টি।

আরও পড়ুনঃ
ওয়েবসাইটে কিভাবে এসইও করবেন এবং খুব দ্রুত ওয়েবসাইটের ভিজিটর বৃদ্ধি করার উপায় Google News & instant index কেন সেটআপ করবেন বিস্তারিত

তার পরবর্তী কার্যদিবসে আপনি যেকোনো একটি ব্যাংক অ্যাড্রেস আপনার গুগল এডসেন্সের এড করে দিবেন এবং যখন আপনার গুগল এডসেন্স এর মেইন ব্যালেন্স 100 ডলার পূর্ণ হবে তার পরবর্তী সময় কিন্তু তারা আপনাকে অটোমেটিক ভাবে পেমেন্ট সেন্ড করে দেবে সর্বনিম্ন আপনি গুগল অ্যাডসেন্স থেকে 100 ডলার উত্তোলন করতে পারবেন এবং সর্বোচ্চ আপনার একাউন্টে যত হবে সব কিন্তু আপনি একবারে উত্তোলন করতে পারবেন গুগল এডসেন্স কিন্তু প্রতি মাসে একবার করে পাবলিশারদের ইনকাম প্রদান করে থাকে।

আশা করি বুঝতে পেরেছেন কিভাবে খুব সহজভাবে গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম করা যায় ওয়েবসাইটের মাধ্যমে যদি এই সম্পর্কে কারো কোন কিছু বুঝতে সমস্যা হয়ে থাকে তাহলে দয়া করে আপনি কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত জানিয়ে দিবেন এবং এডসেন্স সম্প্রতিক যদি কোন প্রকার সমস্যা হয়ে থাকে তাহলে আমাদের সাথে শেয়ার করবেন চেষ্টা করব সেটির সমাধান খুঁজে বের করার জন্য এখন আলোচনা করব গুগল এডমোব নিয়ে।

Google Admob থেকে কিভাবে ইনকাম করবো ?

গুগল এডমোব মূলত হচ্ছে গুগোল এর একটি সার্ভিস যার মাধ্যমে আপনি ইনকাম করতে পারবেন৷

এবং এর ইনকাম সোর্স হচ্ছে অ্যাপস আপনি কিন্তু যে কোন অ্যাপস এর মাধ্যমে গুগল এডমোব থেকে খুব সহজভাবে ইনকাম করতে পারবেন যারা অ্যাপস নিয়ে কাজ করতে চাচ্ছেন অনলাইনে তারা চাইলে কিন্তু গুগল এডমোব এড ব্যবহার করতে পারেন কেননা এটি বর্তমান সময় সকলের কাছেই কিন্তু খুবই জনপ্রিয অনেক মানুষ বর্তমান সময়ে তাদের এক গুলিতে গুগল এডমোব এর এড ব্যবহার করতেছে।

আপনি চাইলে কিন্তু যেকোনো ধরনের অ্যাপস এ গুগল এডমোব এর এড ব্যবহার করতে পারবেন এতে কোন প্রকার সমস্যা হবে না সর্বপ্রথম আপনাকে একটি গুগল এডমোব একাউন্ট তৈরী করতে হবে এবং তারপর আপনাকে আপনার অ্যাপসটি খুব ভালোভাবে এখানে সেটিং করে নিতে হবে অনেকেই হয়তো ভাবতে পারেন যে আমি কি ধরনের অ্যাপ তৈরি করব ইনকাম করার জন্য তো আমি আপনাদেরকে সাধারণ কিছু সাজেশন দিচ্ছি চাইলে এই গুলো আপনি ব্যবহার করতে পারেন আপনার ব্যক্তিগত।

ধরুন আপনি একটি অ্যাপস তৈরি করলেন এবং সেখানে গুগল এডমোব এড ব্যবহার করলেন কিন্তু আপনার অ্যাপ থেকে ব্যবহার করবে এবং কিসের মাধ্যমে আপনার ইনকাম বাড়বে এটি হয়তো আপনার প্রশ্ন থাকতে পারে তাহলে আমি বলব আপনি বর্তমান সময়ে খুব জনপ্রিয় আ্যপ গুলি রয়েছে এই রকম কিছু অ্যাপ তৈরি করতে পারেন যেমন ধরুন ফটো এডিটিং অ্যাপ যদি আপনার দক্ষতা ভালো থাকে এবং আপনি যদি একটি ফটো এডিটিং অ্যাপ তৈরি করতে পারেন তাহলে কিন্তু খুব ভালো পরিমাণে ইনকাম করতে পারবেন অ্যাড নেটওয়ার্কের মাধ্যমে।

কেননা বর্তমান সময়ে খুব জনপ্রিয়তা হচ্ছে বিভিন্ন ধরনের এডিটিং অ্যাপ গুলো ভিডিও এডিটিং এবং ফটো এডিটিং অ্যাপ গুলো বর্তমান সময়ে মানুষের কাছে খুবই জনপ্রিয় এবং প্লে স্টোরে আপনি যদি কোন এডিটিং অ্যাপস সার্চ করে থাকেন তাহলে দেখতে পারবেন অনেক ধরনের আ্যপ চলে আসবে এবং সকল ধরনের অ্যাপস এই কিন্তু মানুষ ব্যবহার করে প্রতিটা অ্যাপস কিন্তু অন্যান্য কাজের জন্য ব্যবহার করা হয়ে থাকে তো চাইলে আপনি এডিটিং অ্যাপ তৈরি করতে পারেন এবং আপনার অ্যাপস টির ভিতরে যদি ভালো ফিউচার থাকে তাহলে কিন্তু আপনার অ্যাপটি মানুষ ব্যবহার করবে এবং আপনার সেই আ্যড থেকে ইনকাম হবে।

আরো কিছু জনপ্রিয়তা উপায় রয়েছে তার মধ্যে আরেকটি হচ্ছে গেম বর্তমান সময়ে আমাদের সকলের কাছে কিন্তু গেম একটি খুবই জনপ্রিয়তা রয়েছে এবং আপনি চাইলে বাচ্চাদের সহজে কোন ধরনের গেম তৈরি করতে পারেন বর্তমান সময়ে কিন্তু বড় মানুষরাও গেম খেলছে যেমন হচ্ছে পাবজি ফ্রী ফায়ার আরও বিভিন্ন ধরনের অনলাইন গেম গুলি এইগুলি কিন্তু বর্তমানে খুবই জনপ্রিয় মানুষের কাছে চাইলে আপনি অফলাইন অনলাইন ভালো গেম তৈরি করতে পারেন এবং সেখানে চাইলে গুগোল Admob ব্যবহার করতে পারেন।

আপনার যেকোনো ধরনের অ্যাপে কিন্তু আপনি গুগল এডমোব অ্যাড ব্যবহার করতে পারবেন এবং গুগল এডমোব একাউন্ট অ্যাপ্রভেড পেতে আপনার কোন কিছুর প্রয়োজন হবে না শুধুমাত্র অ্যাকাউন্ট তৈরি করার দুই থেকে তিন ওয়েট করা লাগবে তারপর আপনার একাউন্টে অটোমেটিকভাবে অ্যাপ্রভেড হয়ে যাবে তার পরবর্তী সময় আপনার সেই অ্যাপটির সাথে এডমোব একাউন্ট সেটিং করে নিবেন তাহলে দেখতে পারবেন আপনার সেই অ্যাপটি তে এড শো করতেছে।

আরো একটি উপায় রয়েছে আপনি চাইলে কিন্তু ইউজারদের দিয়ে কাজ করিয়ে ইনকাম করতে পারেন অর্থাৎ যেটিকে অনলাইন বিজনেস বলতে পারেন আপনি চাইলে কিন্তু মানুষকে আপনার অ্যাপ এ কাজ করিয়ে অ্যাডভিউ করিয়ে তাঁদেরকে তাদের পারিশ্রমিক দিয়ে এডমোব থেকে ইনকাম করতে পারেন যদি আপনি একটি আর্নিং অ্যাপ তৈরি করেন এবং সেখানে যদি আপনি গুগল অ্যাডমোব বসান তাহলে ইউজারদেরকে আপনি একটি নিয়ম বলে দেবেন তারা যেন খুব ভালোভাবে কাজ করে তাহলে কিন্তু আপনার ইনকাম অনেক পরিমাণে হবে প্রতিদিন এবং তার থেকে কিছু অংশ আপনি ইউজারদেরকে দিয়ে দিবেন।

এই বিষয়টি টোটালি আপনার নিজের ব্যক্তিগত ভাবে নেবেন কেননা বর্তমান সময়ে অনেকেই রয়েছে যারা ইউজার দিয়ে অ্যাপ এ কাজ করাচ্ছে এবং গুগল এডমোব থেকে খুব সহজে ইনকাম করতেছে এটি থেকে কিভাবে আপনি টাকা তুলবেন এই বিষয়ে কোন কথা বলি।

এটিও আপনাকে গুগল এডসেন্স এর মত 10 ডলার হলে আপনাকে পিন ভেরিফাইড করতে হবে অর্থাৎ আপনাকে 10 ডলার হওয়ার পর সমস্ত কিছু যাচাই-বাছাই করার জন্য আপনাকে একটি লিটার এবং সেখানে একটি কোড থাকবে যা আপনাকে গুগল এডমোব একাউন্ট এ সাবমিট করতে হবে যেটি হুবহু গুগল এডসেন্স এর মত টাকা তোলার জন্য আপনার প্রয়োজন হবে একটি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট যেমনটা আমি উপরে বলেছি যেভাবে আপনি গুগল এডসেন্স থেকে টাকা তুলবেন ঠিক সেইরকম ভাবে কিন্তু আপনি গুগল এডমোব থেকে টাকা তুলতে পারবেন।

এখানে আপনি মিনিমাম ১০০ ডলার হলে আপনার ব্যাংক একাউন্টে ট্রান্সফার করে নিতে‌ এবং সর্বোচ্চ আপনার মেইন ব্যালেন্সে যত টাকা হবে অর্থাৎ যত ডলার হবে আপনাকে কিন্তু প্রতি মাসে একবার সেই ডলারগুলো ট্রানস্ফার করে দেওয়া হবে আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট টি তে তো আপনি যদি আপনি এপ কাজ করতে চান তাহলে অবশ্যই করতে পারেন এবং এইগুলো মনে রাখবেন 100% পেমেন্ট কেননা গুগোল হচ্ছে বিশ্বের অন্যতম একটি সেরা কোম্পানি যাদের অনেকগুলো সার্ভিস রয়েছে কোন সার্ভিসে কিন্তু আপনি ভুল ধরতে পারবেন না।

কে আপনি আপনার যে কোন অ্যাপ এ গুগল এডমোব ব্যবহার করতে পারেন এবং খুব সহজভাবে ইনকাম করার জন্য গুগল এডমোব রয়েছে যারা অ্যাপ এ কাজ করতে চাচ্ছেন তাদেরকে সাজেশন করব আপনি গুগল এডমোব নিয়ে কাজ করুন তাহলে পেমেন্ট নিয়ে কোন প্রকার সমস্যা হবেনা আপনার মেন্ ব্যালেন্সে 100 ডলার হলেই আপনাকে সমস্ত ডলার ব্যাংক একাউন্টে ট্রান্সফার করে দেওয়া হবে আশা করি আপনি অ্যাপস থেকে অর্থাৎ গুগল এডমোব থেকে ইনকাম করার বিষয়টি খুব ভালোভাবে বুঝেছেন।

YouTube Monitize চালু করে কিভাবে ইনকাম করবো

কোন আলোচনা করব কিভাবে আপনি ইউটিউব থেকে খুব সহজভাবে ইনকাম করবেন ইউটিউব চ্যানেল মনিটাইজেশন এর মাধ্যমে।

অনেকের হয়তো জানেন না যে ইউটিউবে যে আমরা বিভিন্ন ধরনের এড দেখতে পাই এটি কিন্তু গুগল থেকে দেওয়া হয় অর্থাৎ ইউটিউব কিন্তু গুগোল এর একটি সার্ভিস বা বলতে পারেন একটি কোম্পানি আমরা সকলে জানি ইউটিউব হচ্ছে বিশ্বের অন্যতম একটি ভিডিও শেয়ারিং সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম যেখানে যেকোনো ধরনের ভিডিও আমরা দেখতে পারি এবং পৃথিবীর বেশিরভাগ দেশেই কিন্তু ইউটিউব ব্যবহার করা হয় সকল তথ্য কিন্তু আমরা ইউটিউব থেকে খুব সহজভাবে দেখতে পারি।

চাইলে কিন্তু আমরা খুব সহজভাবে ইউটিউব থেকে ইনকাম করতে পারব তবে এর জন্য আমাদের কিছু কাজ করতে হবে যার মাধ্যমে আমরা ইউটিউব থেকে ইনকাম শুরু করতে পারব আমাদের ওয়েবসাইটে ইউটিউব সম্পর্কে আরেকটি পোস্ট রয়েছে চাইলে সেই পোষ্টটি দেখে নিতে পারেন তো আপনি যদি ইউটিউব থেকে ইনকাম করতে চান সর্বপ্রথম আপনাকে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করতে হবে বর্তমান সময়ে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করা মনে হয় খুবই সহজ একটি কাজ সকলেই পারবেন।

এবং অনেকেই তাদের পেশা হিসাবে অনলাইনে ইউটিউবিং শুরু করতেছে এবং এখান থেকে কিন্তু বেশিরভাগ মানুষ এই সফলতা অর্জন করতে পারে খুব সহজভাবে কেননা আপনি যদি একবার জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পারেন ইউটিউবে তাহলে আপনার ভিডিওগুলো ভাইরাল বা ভিউ হতে খুব বেশি সময় লাগবে না এবং আপনি যদি একবার খুব ভালভাবে ইউটিউব এর জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পারেন তাহলে পরবর্তী সময় আপনাকে আর পিছন ফিরে তাকাতে হবে না ইউটিউব থেকে আপনি প্রতিমাসে অনেক পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ
আপনি কি ফেসবুক মার্কেটিং করে ইনকাম করতে চান ? তাহলে দেখুন ফেসবুক থেকে ইনকাম করার সেরা দুইটি উপায় পার্ট ১

বাংলাদেশের অধিকাংশ মানুষ কিন্তু যারা অনলাইনে কাজ করে তাদের একটি করে হলেও ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে এবং বর্তমানে আরেকটি ট্রেন্ডিং হচ্ছে গেমিং চ্যানেল গুলি অনেকেই ইউটিউব চ্যানেল খুলতে চাই লাইভ স্ট্রিম সহ আরও বিভিন্ন ভিডিও আপলোড করার জন্য কেননা বর্তমান সময়ে আপনি যদি ফ্রী ফায়ার বা বিভিন্ন ধরনের ভালো গেম সুন্দর ভাবে ধারন করতে পারেন এবং খেলতে পারেন তাহলে কিন্তু সেই গেমের ভিডিও গুলো খুব সহজভাবে রেকর্ড করে ইউটিউবে আপলোড করতে পারেন এবং ইউটিউব এর শর্ত অনুযায়ী যদি আপনি কাজ করতে পারেন তাহলে খুব সহজভাবে কিন্তু আপনার চ্যানেল টি মনিটাইজেশন পেয়ে যাবেন।

তো চাইলে কিন্তু আপনি ইউটিউবে কাজ করতে পারেন এখানে কিন্তু অন্যান্য কাজের চেয়ে খুব সহজ হবে যদি আপনি প্রথম অবস্থায় পরিশ্রম করতে পারেন কেননা আমি আমার অনলাইন ইনকাম সম্প্রতিক সকল পোস্টে বলে থাকি আপনার ধৈর্য এবং পরিশ্রম এর ওপরে আপনার ইনকাম নির্ভর করতেছে যদি আপনি ইউটিউবে কিছুদিন ভালো ভাবে পরিশ্রম করেন তাহলে কিন্তু পরবর্তী সময় আপনাকে খুব বেশি পরিশ্রম করতে হবে না ভিউ এবং সাবস্ক্রাইব পাওয়ার জন্য খুব সহজভাবে আপনি পরবর্তী সময় গুলোতে আপনার ভিডিও ভিউ এবং সাবস্ক্রাইব নিতে পারবেন।

বর্তমান সময়ে যারা নতুন ইউটিউবার তারা কিন্তু মোবাইল দিয়ে কাজ শুরু করতেছে এবং বেশিরভাগ ইউটিউবার কিন্তু প্রথম অবস্থায় মোবাইল ফোন দিয়ে কাজ শুরু করে এবং তার পরবর্তী সময় দেখা যায় সে যদি খুব পরিশ্রম করে তাহলে কিছুদিনের ভিতর তার চ্যানেলটি মনিটাইজেশন এবং আপনাকে ইউটিউবে চ্যানেল মনিটাইজেশন পাওয়ার জন্য দুটি শর্ত পূরণ করতে হবে বর্তমান সময় কিছুটা কঠিন হলেও যদি আপনি সঠিক নিয়মে কাজ করেন তাহলে আপনার জন্য একদম সহজ হয়ে যাবে ইউটিউবে কাজ করা।

ইউটিউব থেকে প্রতি মাসে অনেক টাকা ইনকাম করা যায় আপনার ধারনার বাহিরে কেননা একটি ভিডিও থেকে কিন্তু শুধুমাত্র আপনি একবার পেমেন্ট পাবেন না আপনার ভিডিওটি এত পরিমাণে হবে আপনার ইনকাম কিন্তু তথ্য পরিমাণে হবে অনেকের ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে যাদের একটি ভিডিও থেকে লক্ষাধিক টাকা ইনকাম করতে এবং আপনি কিন্তু একটি ভিডিও থেকে সারাজীবন ইনকাম করতে পারবেন যত আপনার ভিডিওটি ভিউ হবে আপনার ইনকাম কিন্তু তথ্য পরিমাণ বাড়তে থাকবে প্রতিটি ভিডিও জন্য কিন্তু আপনার ইনকাম ফিক্স‌ করা নেই অর্থাৎ আপনার ইনকাম কিন্তু আনলিমিটেড।

ভিডিওটি যত পরিমাণে ভিউ হবে আপনার ইনকাম কিন্তু কত পরিমাণে বাড়তে থাকবে তো আপনি চাইলে যেকোন বিষয় নিয়ে ইউটিউবে কাজ করতে পারেন যে বিষয়টি আপনার ভালো জানা রয়েছে এবং ইউটিউবে কাজ করার জন্য আপনার প্রয়োজন হবে একটি মোবাইল ফোন বা ল্যাপটপ. কম্পিউটার ইন্টারনেট কানেকশন . এডিটিং অ্যাপস. আরও বিশেষ কিছু প্রয়োজন হবে যেগুলোর মাধ্যমে আপনার ভিডিওটি সুন্দরভাবে ধারণ করা যায় এবং সুন্দর ভাবে ভিডিওটি আপলোড করা যায়।

যদি আপনি অফলাইনে ভিডিও তৈরি করেন তাহলে চেষ্টা করবেন খুব সুন্দর ভাবে ভিডিও এডিট করার জন্য তাহলে আপনার ভিডিওটি মানুষের কাছে ভালো লাগবে এবং যদি আপনার অনলাইন ভিডিও হয় তাহলে খুব পরিমাণে এডিট করতে হবে না অসাধারণ কিছু এডিটের মাধ্যমে কিন্তু আপনার ভিডিওটি সুন্দর্য গড়ে তুলতে পারবেন এবং তার পরবর্তী সময় সেটি ইউটিউবে আপলোড করে দিবেন।

ইউটিউবে যে দুটি শর্ত রয়েছে যায় দুটি শর্ত আপনি পূরণ করতে পারলে খুব সহজভাবে আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি তে মনিটাইজেশন পেয়ে যাবেন এ দুটি শর্ত খুব কঠিন নয় যদি আপনি খুব ভালোভাবে কাজ করেন আর যদি ভাবেন যে আমি ভালোভাবে কাজ না করে আমার চ্যানেলটি তে মনিটাইজেশন নিব তাহলে আপনার চ্যানেল টি হয়তো নষ্ট বা বিভিন্ন ধরনের সমস্যা হতে পারে যেমনটা অনেকে মনে করেন থাকেন অন্যের ভিডিও যদি আমার চ্যানেলে আপলোড করি তাহলে মনে হয় অনেক পরিমাণে বিয়ে হবে এবং সাবস্ক্রাইব আসবে।

সত্যি মনে রাখবেন ইউটিউব এ কাজ করার সময় কোন ভাবেই যেন ইউটিউব এর কোন ভিডিও আপনার চ্যানেলে আপলোড না হয় যদি কোন ভিডিও আপনার চ্যানেলে আপলোড করেন তাহলে অবশ্যই সেটি ভালোভাবে এডিট করে নেবেন কেনো না ইউটিউবে কিন্তু খুব সতর্ক হচ্ছে কপিরাইটিং এটির জন্য কিন্তু আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি নষ্ট হয়ে যেতে পারে তাই কোন সময় কারো ভিডিও কপি করে ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করবেন না এটি একটি বিশেষ অনুরোধ থাকবে তাহলে আপনার চ্যানেলে কোন প্রকার সমস্যা হবে না।

আপনার চ্যানেলটিতে 365 দিনের ভিতরে প্রয়োজন হবে অর্থাৎ এক বছরের ভিতর আপনার চ্যানেলের প্রয়োজন হবে মনিটাইজেশন পাওয়ার জন্য 1000 সাবস্ক্রাইবার এবং 4000 watch টাইম ঘন্টা এ দুটি শর্ত যদি আপনি পূরণ করতে পারেন তাহলে আশা করা যায় আপনার চ্যানেলটিতে খুব দূরত্ব মনিটাইজেশন পেয়ে যাবেন এবং এই কাজগুলো করার পরে কিন্তু আপনার চ্যানেলের জন্য মনিটাইজেশন আবেদন করতে পারবেন।

যদি আপনার চ্যানেল টি ইউটিউব তাদের পার্টনারশিপে নিয়ে নেয় তার পরবর্তী সময় থেকে কিন্তু আপনার ইনকাম শুরু হবে এবং গুগোল এর সমস্ত ইনকাম সোর্স এর পেমেন্ট শুধুমাত্র ব্যাংকের মাধ্যমে করা হয় যেহেতু এটি গুগলের সার্ভিস সে জন্য আপনাকে অবশ্যই পেমেন্ট নেওয়ার জন্য ব্যাংক একাউন্ট ব্যবহার করতে হবে সর্বনিম্ন আপনি 100 ডলার আপনার ব্যাংক একাউন্টে ট্রান্সফার করতে পারবেন ইউটিউবে ইনকাম এবং সর্বোচ্চ আপনার মেইন ব্যালেন্সে যত থাকবে ততদিন আপনি উত্তোলন করতে পারবেন।

ইউটিউবে যদি আপনি ভালভাবে কাজ করতে পারেন তাহলে কিন্তু অনেক পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে পারবেন এবং সারাজীবন আপনি ইউটিউবে কাজ করতে পারবেন খুব সহজ ভাবে যদি প্রথম অবস্থায় আপনি কিছুটা পরিশ্রম এবং ধৈর্য ধারণ করেন তাহলে আশা করি বুঝতে পেরেছেন ইউটিউব থেকে ইনকাম সম্পর্কে।

শেষ কথা

আশা করি আপনার কাছে আমাদের পোস্টটি ভালো লেগেছে যদি আপনার কাছে এই পোস্টটি ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন যেন তারাও দেখতে পারে গুগল থেকে ইনকাম করার উপায় গুলো যদি আপনি ইনকাম করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে কিছুটা পরিশ্রম করতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি যে কোন কাজে সফলতা অর্জন করতে পারবেন সেই রকম ভাবে অনলাইনে ইনকাম করতে হলে অবশ্যই আপনাকে কিছুটা পরিশ্রম করতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি অনলাইনে যে কোন কাজে খুব দ্রুত সফলতা অর্জন করতে পারবেন।

সকলেই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন এবং আমাদের ওয়েবসাইটের সাথে থাকুন ধন্যবাদ সবাইকে।

About Admin

পড়াশোনার পাশাপাশি ব্লগিং করতে পছন্দ করি। এবং অনলাইনে টেকনোলজি সবসময় শেখার চেষ্টা করতেছি। আমি যতোটুকু জানি চেষ্টা করি আমার ওয়েবসাইটে শেয়ার করার জন্য।

View all posts by Admin →

Leave a Reply

Your email address will not be published.